ক্রিকেটার বিকাশ চন্দ্র দাসের ইসলাম গ্রহন!

ছবিতে যাকে দেখছেন, তিনি বাংলাদেশ ক্রিকেট দলের প্রথম হিন্দু ক্রিকেটার ‘বিকাশ রঞ্জন দাস’। ২০০০ সালে বাংলাদেশের অভিষেক টেস্টে একাদশে ছিলেন এ ফাস্ট বোলার। কিশোরগঞ্জ জেলার এ ক্রিকেটার এক সময় ইনজুরির কারণে ক্রিকেট থেকে ছিটকে পড়েন। তবে এ ক্রিকেটারের জীবনে ইন্টারেস্টিং বিষয় হচ্ছে তার ধর্মান্তরিত হয়ে ইসলাম ধর্ম গ্রহণ। তার বর্তমান নাম মাহমুদুল হাসান রানা। অনেকেই দাবি করে, Continue reading

অধিকার, হিন্দু বনাম মুসলিম!

ঢাকাস্থ আর্মি স্টেডিয়ামে শত কোটি টাকা খরচ করে ৫ দিন ব্যাপী অনুষ্ঠিত হচ্ছে ভারতীয় হিন্দুয়ানী শাস্ত্রী সংগীত অনুষ্ঠান। এ অনুষ্ঠানে আগত অতিথীদের জন্য বন্ধ করা হচ্ছে বনানী মহাসড়কটি । অথচ বনানী মহাড়ক হচ্ছে প্রায় ২২/২২টি জেলার প্রবেশ মুখ । উল্লেখ্য ‘ঢাকায় কোরবানী ঈদের সময় যানজট হতে পারে এমন অজুহাতে হাটের সংখ্যা হ্রাস করা হয়েছিলো এবং সমস্ত হাটগুলো ঢাকা থেকে বের করে দেওয়া হয়েছিলো, এরমধ্যে উল্লেখযোগ্য ছিলো বনানী রেলওয়ের খালি স্থানের গরুর হাটটিও । Continue reading

পূজায় শব্দদূষণে অতিষ্ট সাধারণ মানুষ

পূজো মানেই শব্দদূষণ, প্রতিকার আছে কি ?

দুর্গাপুজো মানেই ঢাকের বাদ্যি, আর বাড়ি যদি হয় মণ্ডপ থেকে মাত্র কয়েক পা দূরে, তবে আর কথাই নেই। বাড়িটাও যেন কাপতে থাকে ঢাকের আওয়াজে।
ঢাকের সাথে চলতে থাকে কানফাটানো লাউডস্পিকার। ঢাকের শব্দ আর লাউড স্পিকারের দাপটে কান হয় ঝালাপালা, মাথা ধরে যায়, ঘুমের বাজে বারোটা। বৃদ্ধ, অসুস্থ, কিংবা শিশুদের অবস্থা হয় আরো করুণ।
উল্লেখ্য দূর্গা পূজা বা নবরাত্রীকে কেন্দ্র করে সৃষ্ট এ শব্দদূষণের বিরুদ্ধে ভারতের সাধারণ জনগণ ও পরিবেশবাদীরা সরব হয়েছে অনেক আগেই।
ভারতীয় মিডিয়ায় প্রকাশিত খবরগুলো দেখুন—–
১) পূজা উপলক্ষে শব্দ দূষণ, শব্দের মাত্র ১১০ ডেসিবেল !
খবর: http://goo.gl/rSjAer
২) পূজা উপলক্ষে ৯ রাত, ১০ দিন ১১৭ ডেসিবেল শব্দ ! (সূত্র http://goo.gl/ZvzQdT) Continue reading

হত্যাযজ্ঞ নিয়ে এখন নাস্তিক ও মানবতাবাদীরা নিরব

হত্যাযজ্ঞ যখন হিন্দু ধর্মীয় উৎসব : নাস্তিক ও মানবতাবাদীরা এখন নিরব কেন ?

অনেক নাস্তিক ও কথিত মানবতাবাদীদেরকে দেখেছি, মুসলমানদের কোরবানী ঈদ আসলে বলে- “দেখেছেন মুসলমানদের ধর্মীয় উৎসব কেমন ? প্রাণী হত্যা করে তারা ধর্মীয় উৎসব করে, তার মানে আল্লাহ কি হত্যা করলে খুশি হন ! প্রাণী হত্যা কিভাবে ধর্মী উৎসব হতে পারে?” ইত্যাদি ইত্যাদি। এ কথা বলে নাস্তিক ও মানবতাবাদীরা অনেকেই ভাব ধরে, কোরবানী দিতে নিষেধ করে।
অথচ ঐ নাস্তিক ও কথিত মনবতাবাদীদের কখনই দেখি নাই- দূর্গা পূজার বিরুদ্ধে কিছু বলতে,বরং তারাই বলে থাকে- ‘দূর্গা পূজা সার্বজনিন অনুষ্ঠান’, ‘ইহা বাঙালী সংস্কৃতির অংশ’। ক্ষেত্র বিশেষে নিজেরাই পূজা দিয়ে আসে।

Continue reading

মুসলমানদের আইডেনটিটি ক্রাইসিস

 

মুসলমানরা আজকাল কেমন জানি  ভুগছে। নিজেকে মুসলিম হিসেবে পরিচয় দিতে ভয় পাচ্ছে। অথবা ইসলামী কোন কাজ প্রকাশ্যে করতে লজ্জা বোধ করছে।

এটা শুধু এক যায়গায় না, সমাজের টপ টু বটম একই অবস্থা। প্রকাশ্যে কেউ যদি কিছু করেও তবে মিডিয়া তার বিরুদ্ধে লেগে যায় খোচাখুচি করা শুরু করে। ব্যস পিছু হটে যায় ঐ মুসলিম।

এই যে কিছুদিন আগে বাংলাদেশে ভারতীয় প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি এসেছিলো। সে কিন্তু এসেই মন্দিরে প্রবেশ করে পূজো করেছিলো । কখনো দেখেছেন- মুসলিম কোন প্রধানমন্ত্রী কোন দেশে গেলে মসজিদ গিয়ে তারা যাত্রা শুরু করে ? কখনই না। Continue reading